ডিজিটাল মার্কেটিং কি - ডিজিটাল মার্কেটিং এর প্রধান স্তম্ভ কয়টি

প্রিয় পাঠক, আপনি নিশ্চয়ই জানতে চান ডিজিটাল মার্কেটিং কি? ডিজিটাল মার্কেটিং এ কিভাবে কাজ করতে হয়। ডিজিটাল মার্কেটিং এ কি কি কি কাজ করতে হয়? তাহলে আপনি সঠিক জাইগাই এসেছেন। আমরা এই পোস্টের মাধ্যমে আপনাকে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে সম্পূর্ণ জানানোর চেষ্টা করবো। আই পোস্ট পরলে আশা করি আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে একটা পরিষ্কার ধারণা পাবেন।


ডিজিটাল মার্কেটিং বর্তমানে অনেক জনপ্রিয় একটি অনলাইন ইনকামের সেক্টর। যখনে আপনি সহজেই ঘরে বসে লাখ লাখ টাকা ইনকাম করতে যাই। আপনিও ইনকাম করতে চাইলে আমাদের পোস্টটি মনোযোগ সহকারে পড়ুন
পোস্ট সূচিপত্রঃ ডিজিটাল মার্কেটিং কি - ডিজিটাল মার্কেটিং এর প্রধান স্তম্ভ কয়টি

ভূমিকা

এই পোস্টের মাধ্যমে আপনাকে জানানোর চেষ্টা করবো ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে বিস্তারিত সকল কিছু যেমন- ডিজিটাল মার্কেটিং কি, ডিজিটাল মার্কেটিং কত প্রকার, গুগল এডসেন্স কনটেন্ট মার্কেটিং, সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং (SMM), ফেসবুক মার্কেটিং কিভাবে করবেন, ইউটিউব মার্কেটিং কি, সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন (SEO) সম্পর্কে, অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং (Affiliate Marketing) সম্পর্কে, ইত্যাদি অনেক গুলো বিষয়ে সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে আমাদের সাথেই থাকুন

ডিজিটাল মার্কেটিং কি

ডিজিটাল মার্কেটিং হল- অনলাইন এ মার্কেটিং, সহজ কথাই অনলাইনে কোন পন্যের প্রচার প্রচারনা করাকেই ডিজিটাল মার্কেটিং বলে। এছাড়াও বলা যাই, ইন্টারনেট, ডিভাইস ( যেমন- মোবাইল, কম্পিউটার, ল্যাপটপ ইত্যাদি) সোশ্যাল মিডিয়া ( যেমন- ফেসবুক, ইউটিউব, ওয়েবসাইট, ইন্সট্রাগ্রাম ইত্যাদি) মাধ্যম ব্যবহার করে কাস্টমারদের কাছে পন্যের জানান দেওয়ার একটি প্লাটফর্ম। এখন কার মানুষ অধিকাংশ সময় সোশ্যাল মিডিয়াতে থাকে তাই ডিজিটাল মার্কেটিং একটি জনপ্রিয় প্লাটফর্ম।

ডিজিটাল মার্কেটিং কত প্রকার

১. গুগল এডসেন্স
২. কনটেন্ট মার্কেটিং
৩. সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন (SEO)
৪. অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং
৫. CPA মার্কেটিং
৬. লিড জেনারেশন
৭. ইমেইল মার্কেটিং
৮. এসএমএস মার্কেটিং
৯. ড্রপ শিপিং ও কুপন বিজনেস
১০. মিডিয়া মার্কেটিং (SMM)
  • ফেসবুক মার্কেটিং
  • ইউটিউব মার্কেটিং
  • ইন্সট্রাগ্রাম মার্কেটিং
  • টুইটার মার্কেটিং
  • হ্যাশট্যাগ মার্কেটিং
  • লিংকডইন বিটুবি মার্কেটিং
  • কো'রা মার্কেটিং
  • পিন্টারেস্ট মার্কেটিং
  • ইন্সট্রাগ্রাম মার্কেটিং ও অটোমেশন
  • ভিমো মার্কেটিং
  • রেডিট মার্কেটিং
  • লাইভ স্ট্রিম মার্কেটিং

কনটেন্ট মার্কেটিং কি - ব্যাখ্যা সহ

কনটেন্ট মার্কেটিং কি জানতে হলে আগে জানতে হবে কনটেন্ট কি? কনটেন্ট হল আমরা কোন ওয়েবসাইটে যেই লিখা-লেখি গুলো দেখি বা লেখি পোস্ট আকারে শেগুলোকে বলে কনটেন্ট। আর থাকলো মার্কেটিং তাইতো, মার্কেটিং হল কোন পন্যের প্রচার-প্রচারনা। তাহলে কনটেন্ট মার্কেটিং এর অর্থ হওয়ার কথা কনো ওয়েবসাইটের পোস্টে প্রচার-প্রচারনা করা তাইতো ? কিন্তু কনটেন্ট মার্কেটিং এর অর্থ এটা যথাযত নয়, তাহলে কি?

কনটেন্ট মার্কেটিং যথাযত হল কনটেন্ট মাঝে এমন কিছু মূল্যবান, সুন্দর, আকর্ষণী ও ধারাবাহিক উন্নত মানের তথ্য সংযুক্ত করা যার মাধ্যমে অডিয়েন্সকে নিদিষ্ট কিছু পন্যের প্রতি আকৃষ্ট করা যাই। সহজ কথাই বলতে গেলে কনটেন্ট বা আর্টিকেল এমন ভাবে আকর্ষণী করে লিখতে হবে কিছু নিদিষ্ট পন্যের জন্য যেন অডিয়েন্স আকৃষ্ট হয়। আর তাই আপনাকে একজন ভালো কনটেন্ট মার্কেটের হতে হলে ভালো কনটেন্ট লিখা শিখতে হবে।

গুগল এডসেন্স (Google ADSence)

গুগল সার্চ ইঞ্জিনের সাথে সম্পৃক্ত একটি সার্ভিস যাকে গুগল এডসেন্স বলে। গুগল এডসেন্সে গুগল তার নিজের অ্যাডভার্টাইজমেন্ট দেখায় এছাড়াও আপনি চাইলে এখানে আপনার নিজের কোন বিজ্ঞাপন বা আপনার ফেসবুক বা ইউটিউব এর কোন বিজ্ঞাপন গুগল এডসেন্সে দেখাতে পারেন। সহজ কথায় গুগল এডসেন্স হল অ্যাডভার্টাইজমেন্ট প্লাটফর্ম যেখানে বিজ্ঞাপন দেখানর মাধ্যমে ইনকাম করা যাই।

গুগল এডসেন্সে কিভাবে কাজ করে

গুগল এডসেন্স এর প্রধান কাজ হল গুগলের অধিনে থাকা সকল ওয়েবসাইট এ গুগল এর নিজের বিজ্ঞাপন দেখান , যেমন গুগলে মানুষ গুগল মার্কেটিং করে সেখানে গুগল কে টাকা দিতে হয় যেন গুগল সেই মানুষটির বিজ্ঞাপনটি মার্কেটিং করে দেয়। এখন আসুন গুগল মার্কেটিং কি ? আপনারা হয়ত লক্ষ করেছেন যে গুগল , ফেসবুক বা ইউটিউব এ কিছু দেখার সময় হটাত অ্যাড চলে আসে সেগুলো আপনাকে না চাইলেও দেখতে হয়।

সেই অ্যাড দেখানর জন্য কেউ গুগল , ফেসবুক বা ইউটিউব কে টাকা দেই ওই অ্যাড আপনাকে দেখাই। ঠিক তেমনি গুগল মার্কেটিংও মার্কেটার গুগল কে টাকা দেয় এবং গুগল মার্কেটারের টার্গেট কাস্টমারদের কাছে সেই বিজ্ঞাপনটি দেখাই। এছাড়াও ফেসবুক ইউটিউব এর দেখানো ওয়েবসাইট এর মালিকের কাস্টমাইজ বিজ্ঞাপন দেখানো গুগল এডসেন্সের কাজ।

গুগল এডসেন্স কেন আমাদের টাকা প্রদান করে

গুগল এডসেন্স কেন আমাদের টাকা দেয় সেটা না জানলেও আমরা ফেসবুক , ইউটিউব বা গুগলে কোন কিছু দেখার সময় হটাত অ্যাড চলে আসে সেটা আমরা কোন ক্ষেত্রে দেখতে না চাইলেও দেখতে হয়। কারন ওই অ্যাডটি কেউ না কেউ মার্কেটিং করেছে জন্যই আমাদের দেখতে হয় । এটা গুগল এর একটা ইনকাম এর দিক। তবে কথা হল আমাদের কেন দেয় ?

গুগল কে টাকা দেয় মার্কেটিং এর জন্য সেটা আমরা জানি আর গুগল তখন সেই টাকার বিনিময়ে মার্কেটার বিজ্ঞাপনটি বিভিন্ন ওয়েবসাইটে দেখাই। যেমন আমাদের ওয়েবসাইট ঠিক এমন অনেক ওয়েবসাইটে দেখাই মার্কেটারের বিজ্ঞাপনটি। যেহেতু এখানে আমাদের ওয়েবসাইটে বিজ্ঞাপন দেখাই আর তাই গুগল আমাদেরকে টাকা প্রদান করে। এতে যেমন আমাদের লাভ হয় ঠিক তেমনি গুগল ও মার্কেটারের ও লাভ হয়। সহজ কথায় বলতে গেলে আমাদের নিজের ওয়েবসাইটে যখন অনেক ভিউয়ার আসে তখন আমাদের ওয়েবসাইটে গুগল বিজ্ঞাপন দেখাই তার জন্য আমরা টাকা পাই।

গুগল এডসেন্স থেকে আয় করার উপাই

গুগল এডসেন্স থেকে থেকে আয় করতে হলে আপনার নিজের একটা ওয়েবসাইট থাকতে হবে। তবেই আপনি গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম করতে পারতবেন। চনুন তাহলে বিস্তারিত যানা যাক

গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম এর প্রথম সর্ত হল নিজের ওয়েবসাইট থাকা এবং সেখানে প্রতিনিয়ত আর্টিকেল পাবলিশ করা। সেই আর্টিকেল গুলা যেন মানসম্মত হই সেদিকে খেয়াল রাখাতে হবে। আপনি আপনার ওয়েবসাইটে যখন অনেক ভিউয়ার আসবে তখন গুগল অ্যাড দেখাবে তখন গুগল আপনাকে টাকা দিবে। আর তাই আপনাকে গুগল এডসেন্স থেকে ইঙ্কাম করতে হলে ভালো মানের একটা ওয়েবসাইট তৈরি করতে হবে এবং আপনাকে ভাল ভাবে আর্টিকেল বা কন্টেন্ট লিখা শিখতে হবে। তবেই আপনি ওয়েবসাইট থেকে ভাল একটা প্রফিট করতে পারবেন মাসে মাসে।

গুগল এডসেন্স থেকে কত টাকা আয় যাই

গুগল এডসেন্স থেকে কত টাকা আয় যাই এটা সম্পর্কে অনেকেরি অনেক কৌতূহল আছে। চনুল আজকে বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক

দেখেন আপনি যেই কাজি করেন না কেন সেটা আপনার সর্বস্ব চেষ্টা করার মাধ্যমে করা উচিত। তবেই আপনি অনেক ভালো কিছু করতে পারবেন। এখন আসে গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম করার ব্যাপারে। আপনারা হইত জেনেছেন ওপরে থেকে যে গুগল এডসেন্স থেকে ইনকামের জন্য ভালো একতা ওয়েবসাইট ও ভালো মানের আর্টিকেল রাইটিং শিখতে হবে। আর তাই আপনি যত ভালো আর্টিকেল বা কন্টেন্ট লিখতে পারবেন আর সেই আর্টিকেল যত মানুষ দেখবে আপনি তত বেশি ইনকাম করতে পারবেন।

এখন আপনি যত বেশি আর্টিকেল লিখতে পারবেন এবং সেটা যত ভালো লিখবেন , আর্টিকেল গুলো ভিউয়ারদের কাছে যত বেশি ভালো লাগবে , তারা তত বেশিক্ষণ আপনার ওয়েবসাইট ভিজিট করবে আর বেশি ভিজিট আপনাকে বেশি টাকা দিবে। যদি আপনি ভালো একটা ইনকাম করতে চান তবে আপনাকে ভালোভাবে কাজ করতে হবে এবং আপনাকে ধৈর্যের সাথে করে যেতে হবে। তাহলেই দেখবেন ভালো একটা ইনকাম আপনি পাবেন গুগল এডসেন্স থেকে।

গুগল এডসেন্সে আবেদন করাতে সর্ত সমূহ ও আবেদন কিভাবে করবেন

গুগল এডসেন্সে (Google ADSence) আবেদন করতে হলে আপনাকে প্রথমে গুগল এডসেন্সের ওয়েবসাইট প্রবেশ করতে হবে। সেখানে আপনাকে তাদের নিয়ম অনুযায়ী একটা ফর্ম আপনাকে দিবে এবং সেটা আপনাকে পূরণ করে সাবমিট করতে হবে। তখন গুগল কর্তৃপক্ষ আপনার ওয়েবসাইট পর্যবেক্ষণ করে দেখবে। দেখে যদি গুগল এডসেন্স এপ্রুভাল এর সলক সর্ত ঠিক থাকে তাহলে গুগল আপনাকে গুগল এডসেন্স এপ্রুভাল দিবে। গুগল এডসেন্স এপ্রুভাল পেলে আপনার ইনকাম শুরু হবে।

সর্ত সমূহঃ
  • গুগল এডসেন্স এপ্রুভাল পেতে হলে অবশ্যই আপনার ওয়েবসাইটে ভালো মানের ১৫-২০ টি কন্টেন্ট বা আর্টিকেল থাকতে হবে।
  • পোস্টগুলো যেন কোনভাবেই কপি - পোস্ট না হয় , (তাই সেটা গুগলে সার্চ দিয়ে বা অন্য কোন ভাবে পরিক্ষা করে নিয়ে নিশ্চিত হয়ে তারপর পাবলিশ করতে হবে)।
  • আডাল্ট পোস্ট বা হ্যাকিং জাতিও কোন পোস্ট আপনার ওয়েবসাইটে রাখা যাবে না।
  • আপনার ওয়েবসাইটে অবশই About us , Contact us , Terms & Conditions , Privacy & Policy এই সকল পেজগুলো রাখতে হবে।
  • অবশ্যই নিয়মিত আর্টিকেল পাবলিশ করতে হবে।

সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং (SMM) কি - ব্যাখ্যা সহ

সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং (SMM) হল সোশ্যাল মিডিয়া যেমন ফেসবুক, ইউটিউ, ইন্সট্রাগ্রাম ইত্যাদি সোশ্যাল মিডিয়াতে একটিভ থাকা মানুষদেরকে টার্গেট করে বিভিন্ন পণ্যর বিজ্ঞাপন প্রচার প্রচারনা করা, তদের সামনে পণ্যর ভালো দিক, আকর্ষণী দিক তুলে ধরা বাবসার উদ্দেশে। সহজ কথাই বলতে গেলে বাবসার উদ্দেশে সোশ্যাল মিডিয়াতে সক্রিয় থাকা মানুষদেরকে টার্গেট করে কোন পণ্যর পচার প্রচারনা করাকেই সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং বলে।

সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং ২ ধরনের হয়। ১. অরগানিক মার্কেটিং ২. পেইড মার্কেটিং। বর্তমান সময়ের মানুষ অধিকাংশ সময় অনলাইনে থাকে। আর অনলাইনের মাধ্যমে দেশের যেকোনো প্রান্ত থেকে যেকোনো জিনিস কেনা সম্ভব। সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং ডিজিটাল মার্কেটিং এর একটি জনপ্রিয় সেক্টর। নিচে সোশ্যাল মিডিয়ার ২টা ধরন ফেসবুক মার্কেটিং ও ইউটিউব মার্কেটিং সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হল। ফেসবুক মার্কেটিং ও ইউটিউব মার্কেটিং সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে আমাদের সাথেই থাকুন।

ফেসবুক মার্কেটিং (Facebook Marketing)

ফেসবুক মার্কেটিং হল সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং এর একটি সেক্টর। ফেসবুক মার্কেটিং হল বাবসার উদ্দেশে ফেসবুকে সক্রিয় থাকা মানুষদের কে টার্গেট করে কিছু নিদিষ্ট পণ্যর বিজ্ঞাপন কিছু নিদিষ্ট মানুষের সামনে তুলে ধরা। সহজ কথাই বলতে গেলে বাবসার জন্য কিছু নিদিষ্ট পণ্যর বিজ্ঞাপন কিছু নিদিষ্ট মানুষেকে টার্গেট করে শুধু টার্গেট করা সেই মানুষদের কেই বিজ্ঞাপন দেখানোকে টার্গেট করা সেই মানুষদের মধ্যেই বিজ্ঞাপন প্রচার প্রচারনা করাকে ফেসবুক মার্কেটিং বলে।

ফেসবুক মার্কেটিং ২ ধরনের হয়। ১. অরগানিক মার্কেটিং মানে ফ্রী মার্কেটিং যেই মার্কেটিং এর জন্য ফেসবুক কে কোন টাকা দিতে হয় না। ২. পেইড মার্কেটিং মানে টাকা দিয়ে মার্কেটিং যেই মার্কেটিং এর জন্য ফেসবুক কে কোন টাকা দিতে হয় তাকে পেইড মার্কেটিং বলে। অরগানিক মার্কেটিং বা ফ্রী মার্কেটিং এ আপনি নিদিষ্ট মানুষদেরকে টার্গেট করতে পারবেন না। কিন্তু পেইড মার্কেটিং আপনি নিদ্দিস্ত মানুষদেরকে টার্গেট করতে পারবেন।

ইউটিউব মার্কেটিং (YouTube Marketing)

ইউটিউব মার্কেটিং ও ফেসবুক মার্কেটিং মতই সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং এর একটা সেক্টর। ইউটিউব মার্কেটিং হল ইউটিউব এর মাধ্যমে মার্কেটিং। এইবার এই ইউটিউব মার্কেটিং কইয়েক ভাবে হতে পারে নিচে উল্লেখ করা হল

আপনার নিজের যদি কোন ইউটিউব চ্যানেল থাকে, তবে আপনার নিজের কোন বিজ্ঞাপন বা আপনার নিজের কোন সেবা সম্পর্কে ভিডিও করে সেটা আপনের ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড দিয়ে প্রচার করা এটা এক ধরনের ইউটিউব মার্কেটিং।

অন্য কারো দ্বারা টাকার বিনিময়ে আপনার চাহিদা মতো মার্কেটিং করিয়ে নিতে পারেন। যেমন এমন কোন ইউটিউব চ্যানেল যেটা অনেক জনপ্রিয় তার মালিকে আপনি টাকা দিয়ে আপনার কোন পণ্য বা সেবা সম্পর্কে বলতে বলবেন তাহলে সেটা মার্কেটিং হয়ে যাবে। এটা এক ধরনের ইউটিউব মার্কেটিং।
আপনি সরাসরি ইউটিউব কে টাকা দিলে ও মার্কেটিং করতে পারেন। আমরা ইউটিউব এ ভিডিও দেখার সময় অ্যাড চলে আসে তাইনা? হ্যাঁ আসে আর এইটা হয় ইউটিউব কে সরাসরি টাকা দিয়ে মার্কেটিং করলে।

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং কি - ব্যাখ্যা সহ

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং কি সেটা বোঝানোর জন্য একটি সহজ শব্দ হল দালাল। আপনারা নিশ্চয়ই দালাল কি সেটা জানেন। দালাল কোন মালিকের কোন জিনিসকে কাস্টমারদের কাছে বিভিন্ন কৌশলে বিক্রি করে দয়ে। বিনিময়ে সেই দালাল কে মালিকটি কিছু টাকা দেই। ঠিক তেমনই অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এ আপনি কোন বড় প্রতিষ্ঠানের কোন পণ্য বিক্রি করেম দিবেন বিনিময়ে আপনাকে কিছু পারসেন্ট টাকা তার আপনাকে দিবে। আর এটাকেই বলে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং।

সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন (SEO) কি - ব্যাখ্যা সহ

সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন যার সংক্ষিপ্ত রূপ হল এসইও (SEO)। সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন বা এসইও (SEO) হল একটা পদ্ধতির নাম যার মাধ্যমে একটি ওয়েবপৃষ্ঠা বা ওয়েবসাইট কে সার্চ ইঞ্জিন ব্যবহারকারীদের সার্চ করা বা অনুসন্ধান করা ফলাফলের তালিকাই শুরুর দিকে নিয়ে আসার চেষ্টা বা সর্বোচ্চকরন করাকেই সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন বা এসইও (SEO) বলে। সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন বা এসইও (SEO) সধারনত ৩ ধরনের হয়ে থাকে। নিচে বর্ণনা করা হল
  • অন-পেজ এসইও (On-Page SEO) হল কোন সার্চ ইঞ্জিন কে টার্গেট করে কোন একটা ওয়েবপৃষ্ঠা বা ওয়েবসাইট কে সার্চ ইঞ্জিন এ সর্বোচ্চকরন করাকেই অন পেজ এসইও বলে। যেমন- হতে পারে আপনার কোন ই-কমার্স ওয়েবসাইটের বা কোন ব্লগার ওয়েবসাইটের কোন একটা ওয়েবপৃষ্ঠা বা ওয়েবসাইটকেই সর্বোচ্চকরন করা এটাকে অন পেজ এসইও বলে।
  • অফ-পেজ এসইও (Off-Page SEO) হল টার্গেট সার্চ ইঞ্জিন বাইরে যেমন ফেসবুক, লিংক বিল্ডিংয় ইত্যাদির মাধ্যমে কোন ই-কমার্স ওয়েবসাইটের বা কোন ব্লগার ওয়েবসাইটের ফ্রী বা অর্গানিক ট্রাফিক বৃদ্ধি করাকে অফ পেজ এসইও বলে।
  • টেকনিক্যাল এসইও (Technical SEO) হল মূলত অর্গানিক বা ফ্রী এসইও পদ্ধতি। কোন ওয়েবসাইট এর পোস্টে এমন কিছু কীওয়ার্ড রাখতে হবে যেন সেটা অর্গানিক ভাবে সেই ওয়েবসাইট সার্চ করা বা অনুসন্ধান করা ফলাফলের তালিকাই শুরুর দিকে থাকে।

লেখকের মন্তব্য

প্রিয় পাঠক, আমাদের এই পোস্টের মাদ্ধমে আপনাকে জানানোর চেষ্টা করছি ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে কিছু তথ্য। আশা করি আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে অনেকটা ধারণা পেয়েছেন। বর্তমানে ডিজিটাল মার্কেটিং অনেক জনপ্রিয় একটি প্লাটফরম অনলাইন ইনাকামের। আপনিও চাইলে শুরু করতে পারেন। ডিজিটাল মার্কেটিং শিখে ঘরে বসে লক্ষ্য টাকা ইনকাম করতে পারেন

আমাদের এই আর্টিকেলটি আপনার কাছে ভালো লেগে থাকলে অবশ্যই একটা কমেন্ট করবেন এবং আপনাদের বন্ধুদের মাঝে শেয়ার করবেন এবং আমাদের পোস্টের মধ্যে কোথাও আপনার ভুল মনে হলে আমাদেরকে কমেন্ট করে বা whatsapp এ জানাবেন। বাংলায় আরও সকল ধরনের তথ্য পেতে আমাদের সাথেই থাকুন। ধন্যবাদ আমাদের সাথে থাকার জন্য ভালো থাকবেন আসসালামু আলাইকুম

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

অর্ডিনারি আইটির নীতিমালা মেনে কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url